কষ্ট আর সাফল্যের দুই বছর পেরিয়ে

ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ●

খালেদ সাইফুল্লাহ ● হাটি-হাটি পা-পা করে এগিয়ে চলেছে তারুণ্যের প্রত্যয় দীপ্ত অনলাইন নিউজ পোর্টাল ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ডট কম। দীর্ঘ দুই বছরের সাধনা, ত্যাগ-তিতীক্ষা, আর মাথার ঘাম পায়ে ফেলে আমাদের এই সাফল্য অর্জন করতে হয়েছে। একদিন ক্ষীন আশা আর মহান প্রভুর উপর অসীম ভরসা নিয়ে যে নিউজ পোর্টালটি যাত্রা শুরু করেছি সে আজ অভুতপূর্ব সাফল্যের দ্বারপ্রান্তে উপস্থিত। শত শত প্রিন্ট মিডিয়া, হাজার-লক্ষ অনলাইন পত্রিকা সেই সাথে শতশত ইলেকট্রনিক মিডিয়ার ছড়াছড়ি। তার ভেতর দিয়ে আমাদেরকে সাতরে, হাবুডুবু খেয়ে কুল কিনারা খুজে নিতে হয়েছে।

দুইটা বছর খুবই কম সময়। তবে আমাদেরকে এই অল্প সময়েই পাহাড়সম বাধা বিপত্তি অতিক্রম করে এ পর্যন্ত আসতে হয়েছে। আমাদের সম্পাদকমন্ডলীর দৃঢ় নেতৃত্ব, সাংবাদিকবৃন্দের কঠোর পরিশ্রম, দৃঢ় প্রত্যয়, একান্ত আনুগত্য এসব গুনাবলীর কারনেই আমাদের এই সাফল্য অর্জন সম্ভবপর হয়েছে। এই অতি স্বল্প সময়েই আমাদেরকে বিভিন্ন আইনী জটিলতা, সাংগঠনিক প্রক্রিয়া সহ অগনিত বাধা বিপত্তি অতিক্রম করতে হয়েছে।

আমাদের সম্পাদকমন্ডলী, বিশেষভাবে উপদেষ্টা সম্পাদক এস এ খান কচি, তরুন সম্পাদক জামিল আহম্মেদ মুকুল এবং নির্বাহী সম্পাদক ওয়ালী উল্লাহ খানের সুক্ষ্ম সাংগঠনিক দক্ষতার কারনেই আমরা এতদূর অগ্রসর হতে পেরেছি। আমাদের এই সাফল্যের সবচাইতে বেশি দাবিদার সেইসব তরুন সাংবাদিক যারা মাঠে -ময়দানে ফাস্ট বিডিনিউজের হয়ে দেশ ও জাতির স্বার্থে নিঃস্বার্থভাবে কাজ করে চলেছেন। তাদের মাথার ঘাম পায়ে ফেলা খাটুনি আর একান্ত মনোযোগীতা ও মেধা খরচের ফলই আজকের ফাস্ট বিডিনিউজের সাফল্য। এই ফাস্ট বিডিনিউজের কোন ভবিষ্যত ছিল কিনা সেকথা একদিন আমরা নিজেরাও বলতে পারতাম না।

সেই সূচনা লগ্নে আমাদের কি অবস্থা ছিল সেটা মনে করে মাঝে মাঝে আমরা নিজেরাই হাঁসি। একটা ওয়েব ডেভলপার কোম্পানির কাছ থেকে ওয়েবসাইট যখন খোলা হয়েছিল তখন আমরা জানতাম না কিভাবে নিউজ আপডেট করতে হয়, কিভাবে এডিট করতে হয়। আর এখনকার অনলাইন পত্রিকাগুলো চালু হওয়ার আগেই কপি পেস্ট বিদ্যা শিখে নেয়। সত্য কথা বলতে আমাদের তখন কোন কম্পিউটার বা ল্যাপটপও ছিল না, ছিল না কোন অফিস। তবে ছিল কিছু অদক্ষ সাংবাদিক, তারা যে নিউজগুলো পাঠাতো সেগুলোই সাইটে এ্যাড করা হতো। এইসব সাংবাদিকদেরকে মাঝে মাঝে কিছু টিপস দেওয়ার জন্য যেখানে সুবিধা সেখানে ডাকা হতো। তবে এতে তাদের কোন ধরনের অনীহা বা আপত্তি ছিলনা। আজকে সেই পত্রিকাটির দেশের বিভিন্ন জায়গাতে অফিস হয়েছে, হয়েছে একঝাক তরুন সাংবাদিক যাদের অনেকেই দক্ষ, অনেকেই অদক্ষ। তবে অদক্ষরাই আমাদের সম্পদ। এছাড়াও আজকে আমাদের কাজ করার জন্য অনেকগুলো কম্পিউটার, ল্যাপটপ হয়েছে। এতসব সংকীর্ণতা থাকা সত্বেও আমাদের মনটা ছিল বিশাল প্রশস্ত। আমরা কখনো থেমে থাকিনি। আমাদের ছিলনা পত্রিকার উন্নতি করার জন্য কালো টাকা, ছিলনা এমপি, মন্ত্রী পকেটে ভরার মতো ক্ষমতা। আমাদের সম্পদ বলতে ছিল সততা, কর্তব্যনিষ্টা, নৈতিকতা, বলিষ্ঠতা প্রভৃতি গুন। যত প্রতিকুল পরিবেশই হোক না কেন আমরা কখনো অন্যায়ের সাথে আপোষ করিনি, অন্যায়ের বিরুদ্ধে কথা বলা হতে বিরত থাকিনি, কোন ক্ষমতা বা অর্থের কাছে নিজেদের মাথা বিক্রি করে দিইনি। এসব কিছুই হয়ত আমাদের সফলতাকে অগ্রগামী করেছে।

আমাদের পত্রিকা প্রতিষ্ঠা করার পেছনে প্রধান কারন ও উদ্দেশ্য ছিল আজকালকার গতানুগতিক সাংবাদিকতাকে উপেক্ষা করে সাংবাদিকতার নতুন মডেল তৈরী করা। প্রকৃতপক্ষে জনগনের হয়ে কিছু বলা, বাংলার মানুষকে বিশ্বের বুকে পরিচয় করিয়ে দেওয়া। আমরা আমাদের লক্ষের দিকে কতটুকু আগাতে পেরেছি জানিনা তবে একটি সৎ ও নির্ভীক সাংবাদিক কমিউনিটি গঠন করতে পেরেছি একথা হলফ করে বলতে পারি। হয়ত এখনো দেশের সেরা পত্রিকাগুলোর কাতারে গিয়ে আমরা দাড়াতে পারিনি তবে আমাদের নির্বাহী সম্পাদক ওয়ালী উল্লাহ খান বাংলাদেশ অনলাইন নিউজ পোর্টাল এসোসিয়েশন (বনপা) এর সহ- সাংগঠনিক সম্পাদক হওয়ার গৌরব অর্জন করেছেন। দক্ষিন পশ্চিম অঞ্চলের অনলাইন সাংবাদিকদের ভেতর থেকে তিনিই প্রথম এই মর্যাদার অধিকারী হয়েছেন। এছাড়াও যশোর জেলা থেকে প্রকাশিত অনলাইন পত্রিকার ভেতর শীর্ষ অবস্থানে আছি আমরা। খুলনা বিভাগের উল্লেখযোগ্য অনলাইন নিউজ পোর্টালের সারিতে আমাদের অবস্থানও চোখে পড়ার মত। অন্যরা বছরের পর বছর পত্রিকা চালিয়েও অর্জনের ঝুলিতে যা জমা করতে পারেননি আমরা শুরু করার মাত্র দুই বছরের মধ্যেই তা করে ফেলেছি। তবে আমাদের অর্জনের পেছনে সবচাইতে বেশি কৃতিত্ব আমাদের সম্মানিত পাঠকদের যারা আমাদের এই দীর্ঘ পথচলার সঙ্গী হয়েছেন। তাদের জন্যই আমাদের এই নিঃস্বার্থ পরিশ্রম। পাঠক উপকৃত হলেই তাতে আমাদের সাফল্য। তাই সম্মানিত পাঠকদের কাছে আমাদের বিশেষ অনুরোধ তারা যেন আমাদের এই পথচলার সঙ্গী হিসেবে আমাদেরকে আরও বেশি অনুপ্রাণিত করেন। তবেই আমরা তাদেরকে আরও বেশি কিছু দিতে পারবো।

লেখক: সহকারী সম্পাদক

ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ডট কম।

ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪/ই ই