• আজ রবিবার, ২২শে জুলাই, ২০১৮ ইং ; ৭ই শ্রাবণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ ; ৮ই জ্বিলকদ, ১৪৩৯ হিজরী
  • ‘এমপি নির্বাচিত হলে কেশবপুরে শহর রক্ষা বাঁধ নির্মাণ করবো’

    ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ●

    abdul-latif-rana-1-k

    আব্দুল লতিফ রানা। কেশবপুর উপজেলা পরিষদের বর্তমান নির্বাচিত ভাইস চেয়ারম্যান। তিনি জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য। একইসাথে জেলা জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক সম্পাদক ও কেশবপুর উপজেলা জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদকও তিনি। ছিলেন জাতীয় পার্টির ছাত্র সংগঠন জাতীয় ছাত্র সমাজের কেন্দ্রীর দপ্তর সম্পাদক। যশোর-৬ (কেশবপুর) আসনে ইতোপূর্বে জাতীয় পার্টি থেকে উপজেলা চেয়ারম্যান ও সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ায় উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল লতিফ রানা জোর প্রচারণা চালাচ্ছেন এবার। জাতীয় পার্টি থেকে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন জোটের কাছে যশোর জেলা থেকে একটি আসন যশোর-৬ (কেশবপুর) দাবি করবে বলে জানালেন তিনি। আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন, দেশের সাম্প্রতিক পরিস্থিতিসহ বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলেছেন ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪-এর সাথে। সাক্ষাৎকার নিয়েছেন ওয়ালী উল্লাহ খান এবং কেশবপুর প্রতিনিধি আব্দুর রহমান।

    ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ● আপনার রাজনীতিতে আসার শুরুটা কীভাবে?

    আব্দুল লতিফ রানা ● আমি ১৯৯৩ সালে কেশবপুর ডিগ্রী কলেজে জাতীয় ছাত্র সমাজে যোগ দিই। মূলত এরশাদ সাহেবের দেশ পরিচালনায় আকৃষ্ট হয়ে আমি রাজনীতিতে আসি। কেশবপুরে জাতীয় ছাত্র সমাজের বিভিন্ন দায়িত্ব পালন করেছি। এরপর ২০০১ সালে ঢাকায় যেয়ে কেন্দ্রীয় ছাত্র সমাজের রাজনীতি শুরু করি। ঢাকা মহানগরের বিভিন্ন দায়িত্ব পালন করেছি, সর্বশেষ কেন্দ্রীয় দপ্তর সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেছি।

    ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ● আপনি উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে কী কী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছেন?

    আব্দুল লতিফ রানা ● আমি ভাইস চেয়ারম্যান হওয়ার পর থেকেই মানুষের পাশে থাকার চেষ্টা করছি। এখানে সংসদ সদস্য হিসেবে জনপ্রসাশন মন্ত্রণালয়ের মাননীয় প্রতিমন্ত্রী জনাব ইসমত আরা সাদেক আছেন। আমরা মূলত কেশবপুরবাসীকে ইভটিজিং, মাদক মুক্ত একটি মডেল উপজেলা গড়ার লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছি। বিশেষ করে পরপর দু’টি বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থ মানুষের পাশে আমরা দাঁড়িয়েছি।

    ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ● আপনার দল একই সাথে সরকার ও বিরোধীদলে। এই নিয়ে সমালোচকরা বিভিন্ন সমালোচনা করে থাকেন। আপনার মূল্যায়ন কেমন?

    আব্দুল লতিফ রানা● বাংলাদেশের রাজনীতিতে এরশাদ সাহেবকে নিয়ে বিভিন্ন সমালোচনা হয়, এটা সত্য। কিন্তু রাজনৈতিক দূরদর্শিতা, ম্যাকানিজমে আমার নেতার সিদ্ধান্ত আমি সঠিক বলে মনে করি। রাজনীতি মানেই খেলা, আর এই খেলায় আমি মনে করি এরশাদ সাহেব সফল। বিগত নির্বাচনে বিএনপি-জামায়াত নির্বাচনে না আসায় যে সংকট সৃষ্টি হয়েছিল, জাতীয় পার্টির জোরালো ভূমিকায় এখন সে অবস্থা আর নেই। আমরা সরকারে থেকে যেমন দেশ পরিচালনা করছি, একইভাবে বিরোধী দলে থেকে সরকারের বিভিন্ন গঠনমূলক সমালোচনাও করছি।

    ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ● জোটবদ্ধ নির্বাচন হলে যদি জাতীয় পার্টি এই আসন না পাই, সেক্ষেত্রে কী করবেন?

    আব্দুল লতিফ রানা ● পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের প্রতি আমার অবিচল আস্থা রয়েছে। গতবারও আমি মনোনয়ন ফরম তুলেছিলাম, জাতীয় পার্টির সাখাওয়াত সাহেবও তুলেছিলেন। পার্টির চেয়ারম্যানের নির্দেশে আমি প্রত্যাহার করে নিই। আমি মনে করে কেশবপুরে জাতীয় পার্টির শক্ত অবস্থান রয়েছে। যদি এরশাদ সাহেবকে কেশবপুরে আনতে পারি, তিনি যদি এসে প্রার্থী দিয়ে যান তাহলে আমরা ভালো রেজাল্ট আনতে পারবো। জোটবদ্ধভাবে নির্বাচন হলে যশোর জেলায় জাতীয় পার্টি থেকে একটি আসন দাবি করেছি, সেটি হচ্ছে কেশবপুর। গতবারের জাতীয় পার্টি থেকে মাওলানা সাখাওয়াত সাহেবকে কেশবপুরে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছিল। বর্তমানে যুদ্ধাপরাধী হিসেবে প্রমাণিত হওয়ায় তার সাথে পার্টির কোন সম্পর্ক নেই।

    abdul-latif-rana-2

    ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ● আপনি যদি নির্বাচিত হন সেক্ষেত্রে বিশেষত কী কী কাজ করবেন? ভবদহ সমস্যা নিয়ে আপনার পরিকল্পনা কী?

    আব্দুল লতিফ রানা ● আমি নির্বাচিত হলে কেশবপুরের মূল সমস্যা ভবদহ সমস্যা সমাধানে কাজ করবো। হরিহর, বুড়ি ভদ্ররা ও আপার ভদ্ররা নদীসহ বড় নদী গুলো খনন করবো। কপোতাক্ষ নদ খনন করা হয়েছে, আশা করি আগামী ২০ বছরেও সমস্যা হবে না। কেশবপুরে শহর রক্ষা বাঁধ নির্মাণ করবো। আশা করি আমার পরিকল্পনা কাজে লাগাতে পারলে কেশবপুরের মানুষ আর পানিবন্দি থাকবে না।

    ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ● দেশের বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি কেমন দেখছেন?

    আব্দুল লতিফ রানা ● একই সরকার বারবার ক্ষমতায় থাকার কারণে বাংলাদেশে এখন অনেক উন্নতি হচ্ছে। বিএনপি-জামায়াতের সহিংস রাজনীতি আপাতত না থাকায় আল্টিমেটলি দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। আগামী নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু হোক, যে-ই ক্ষমতায় আসুক সমস্যা নেই। মানুষের ভোটের অধিকার ও ভাতের অধিকার নিশ্চিত হোক।

    ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪ ● আপনাকে ধন্যবাদ।

    আব্দুল লতিফ রানা ● ফাস্ট বিডিনিউজ ২৪-কেও ধন্যবাদ।

    Close